স্বাধীনতা থেকে আজ : আওয়ামীলীগের ঐতিহাসিক মূল্য

  নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ সকাল ১০:২৪, বৃহস্পতিবার, ২৩ জুন, ২০২২, ৯ আষাঢ় ১৪২৯
ফাইল ফটো
ফাইল ফটো

১৯৪৯ সালে যখন আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠিত হয় তখন দলটির কাঁধে ছিলো ছিলো স্বাধীন করার বিশাল দ্বায়ভার। এরপর নানান চড়াই উৎরাই পেরিয়ে ১৯৭১ সালে বঙ্গবন্ধুর হাত ধরে স্বাধীন হয় বাংলাদেশ। আওয়ামী লীগের ঝুড়িতে ওঠে বিশাল এক সফলতা। জন্মের ৭৩ বছর  পেরিয়ে এই দলটি দেশের রাষ্ট্র ক্ষমতায়। অনেক সফলতার মাঝে কয়দিন পর পদ্মাসেতু উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে আরেকটি ঐতিহাসিক সফলতা যুক্ত হচ্ছে দলটির ঝুড়িতে।  

 

উপমহাদেশের সবচেয়ে প্রাচীন এই দলটির সফলতার শুধু এটুকুই নয়। ৭ কোটি জনগণ থেকে আজ ১৭ কোটি জনগনের নেতৃত্ব দিচ্ছে দলটি।  

১৯৪৯ সালের ২৩শে জুন তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানে জন্ম নেওয়া দলটি নেতৃত্ব দিয়েছিলো বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে । বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অসাধারণ নেতৃত্বে পাকিস্তান থেকে আলাদা হয়ে ১৯৭১ সালে একটি নতুন দেশ জন্ম লাভ করে। এ কারণেই বাংলাদেশ নামটির সাথে আওয়ামী লীগ নামটিও অবশ্যিক ও ঐতিহাসিক মূল্যে অপরিহার্য রূপে বিবেচিত হয়।

আওয়ামী লীগ প্রতিষ্ঠায় যাদের অগ্রণী ভূমিকা ছিল তারা হলেন, মজলুম জননেতা মাওলানা আবদুল হামিদ খান ভাসানী, হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং অকালপ্রয়াত নেতা শামসুল হক। এই দল প্রতিষ্ঠার মূল লক্ষ্যই ছিলো বাঙ্গালি জাতীর অধিকার প্রতিষ্ঠা।

৫২-এর ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে ৫৪-এর যুক্তফ্রন্ট নির্বাচন, ৬২-এর সামরিক শাসনবিরোধী আন্দোলন,৬৬-তে বঙ্গবন্ধুর ৬ দফা, ৬৯-এর গণঅভ্যুত্থান,৭০-এর নির্বাচন এবং ৭১ সালের স্বাধীনতা আন্দোলন, সবগুলোর নেতৃত্বই দিয়েছিল আওয়ামী লীগ।

বাঙালী জাতির অধিকার প্রতিষ্ঠায় রাজপথই ছিল আওয়ামীলীগ এর ঠিকানা। শুধু স্বাধীনতা আন্দোলনই নয়, স্বাধীনতার পরবর্তী সবকটি গণতান্ত্রিক আন্দোলনে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছে আওয়ামী লীগ।

১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ঘাতকদের হাতে বঙ্গবন্ধু স্বপরিবারে নিহত হওয়ার পর এদেশের ক্ষমতা চলে যায় স্বাধীনতা বিরোধীদের হাতে। কিন্তু বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা ১৯৮১ সালে দেশে এসে আওয়ামী লীগের হাল ধরেন। এরপর থেকে তার নেতৃত্বেই আওয়ামী লীগ পরিচালিত হচ্ছে।তিনিও বঙ্গবন্ধুর মতো পরবর্তী আন্দোলনগুলোর নেতৃত্ব দিয়েছেন।

বিশেষ করে, ১৯৮৭ সালের এরশাদ বিরোধী আন্দোলন, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে আন্দোলন ও ১/১১’র সেনা শাসিত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছে। এছাড়া সর্বশেষ চারবার সহ পঞ্চমবারের মতো রাষ্ট্র পরিচালনা করছে স্বাধীনতা সংগ্রামে নেতৃত্ব দেওয়া এই দলটি। এই দলটির নেতৃত্বেই ভাগ্য পরিবর্তনের মাধ্যমে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশ।

Share This Article


বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে যুগোপযোগী কারিকুলাম প্রণয়ন করতে হবে

থাইল্যান্ড, সৌদি ও গাম্বিয়া সফরে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

ফরিদপুরে বাস-পিকআপভ্যান সংঘর্ষে নিহত ১১

দেশের দুই বিভাগে ঝড়-বৃষ্টির আভাস

শেখ হাসিনা দেশ পরিচালনায় মসৃণভাবে এগিয়ে যাচ্ছেন : মার্কিন থিঙ্ক-ট্যাঙ্ক

ডিএমপির তৎপরতায় এবার ঈদে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি

ঈদের ছুটি শেষে খুলেছে অফিস-আদালত

বাংলা নববর্ষ উদযাপন : হামলা-নাশকতা ঠেকাতে প্রস্তুত র‍্যাব

পহেলা বৈশাখে হামলার শঙ্কা নেই, তবুও সতর্ক ডিএমপি

দেশবাসীকে বাংলা নববর্ষের শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রীর

দুদিন বন্ধের পর ফের চলছে মেট্রোরেল

পুঁজিবাজারে সূচকের বড় উত্থান