জ্বালানি ও বিদ্যুৎ সাশ্রয়ে সরকারের চার সিদ্ধান্ত

  নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ বিকাল ০৩:৩৪, সোমবার, ১৮ জুলাই, ২০২২, ৩ শ্রাবণ ১৪২৯

গ্যাস বা জ্বালানি তেল এর সঙ্কট সারা  বিশ্বকেই বহুবিধ সমস্যায় ফেলে দেয়।এ কারণেই এই জ্বালানি নিয়ে একদিকে যেমন দেশে দেশে বাধে যুদ্ধ, তেমনই যুদ্ধের কারণেও জ্বালানির সঙ্কট এবং অস্বাভাবিক মূল্য বৃদ্ধি ঘটে এবং এর প্রভাব পড়ে প্রতিটি সেক্টরেই।

সাম্প্রতিক চলমান রাশিয়া ইউক্রেইন যুদ্ধ তার জ্বলন্ত উদাহরণ।এটি এখন একটি বৈশ্বিক সমস্যা,যা কোনও একটি দেশের পক্ষে এককভাবে সমাধান সম্ভব নয়।

রাশিয়া ইউক্রেইন যুদ্ধ শুরুর সাথে সাথেই জ্বালানি সরবরাহ  বিঘ্নিত হলে এর প্রথম ধাক্কায় ইউরোপ এবং পরবর্তীতে সারা বিশ্বই এর কুফল ভোগ করতে শুরু করে।জ্বালানির উপর নির্ভরশীল  উৎপাদন ব্যবস্থা এবং বিদ্যুৎ  সঙ্কটও তীব্র হতে থাকে।ইউরোপের অনেক দেশসহ ভারত পাকিস্তান এবং বাংলাদেশেও এর ধাক্কা এসে পড়েছে বেশ ভালোভাবেই।যুদ্ধ যত দীর্ঘায়িত হচ্ছে সমস্যাও ততো তীব্র হচ্ছে।যুদ্ধ বন্ধ হওয়া ছাড়া আশু এই সমস্যা থেকে বের হওয়া খুবই কঠিন এবং প্রায় অসম্ভবই বলা যায়।তাই এখন একমাত্র উপায় হিসেবে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ সাশ্রয়ের পথেই হাটতে শুরু করেছে।দেরিতে হলেও বাংলাদেশও সম্প্রতি এই বিকল্প পথে হাঁটার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

জানা যায়, তীব্র জ্বালানি সঙ্কট থেকে রক্ষা পেতে এখন থেকেই সপ্তাহে একদিন পেট্রোল পাম্প বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।১৮ জুলাই বিদ্যুৎ ও জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

এছাড়া জ্বালানি তেলের লোকসান কমাতে ডিজেল ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র গুলোতে ১৮ জুলাই থেকেই  বিদ্যুৎ উৎপাদন বন্ধ রাখা হবে বলেও জানা যায়।

এ কারণে একই তারিখ থেকে পরীক্ষামুলকভাবেএলাকা ভিত্তিক দুই ঘন্টা করে রুটিনমাফিক লোডশেডিংও শুরু হবে।

অন্যদিকে সরকারি-বেসরকারি অফিস ক্ষেত্র বিশেষে ভার্চুয়ালি করার সিদ্ধান্তও নেয়া হয়েছে বলে জানান জ্বালানি উপদেষ্টা তৌফিক ই ইলাহী।

বিশ্লেষকরা বলছেন, অপ্রত্যাশিত এই বৈশ্বিক সমস্যাকে যেহেতু পাশ কাটিয়ে যাবার কোনও উপায় নেই, তাই সাশ্রয়ী পথে হাঁটার সরকারের দ্রুত সিদ্ধান্ত গ্রহণ কিছুটা হলেও আমাদেরকে কঠিন বিপদ থেকে রক্ষা করবে।তবে আরও বেশ কিছু ক্ষেত্রেও সাশ্রয়ী হবার সিদ্ধান্ত নেয়া উচিত বলেও পরামর্শ দেন তারা।

Share This Article


ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস আজ

বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে যুগোপযোগী কারিকুলাম প্রণয়ন করতে হবে

বাংলাদেশে তিন দিনে আশ্রয় নিলো মিয়ানমারের আরো ২৮ নিরাপত্তারক্ষী

প্রথম ধাপে ১ হাজার ৮৯১ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র দাখিল

এ মৌসুমে ওমরাহ পালনের সময়সীমা ১৫ জিলকদ পর্যন্ত

ইসরায়েলকে সহযোগিতার কথা অস্বীকার করছে সৌদি আরব

থাইল্যান্ড, সৌদি ও গাম্বিয়া সফরে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

ফরিদপুরে বাস-পিকআপভ্যান সংঘর্ষে নিহত ১১

দেশের দুই বিভাগে ঝড়-বৃষ্টির আভাস

ঈদ ও নববর্ষে পদ্মাসেতুতে ২১ কোটি ৪৭ লাখ টাকা টোল আদায়

হিলি সীমান্তে বিএসএফকে মিষ্টি দিয়ে নববর্ষের শুভেচ্ছা জানাল বিজিবি

শেখ হাসিনা দেশ পরিচালনায় মসৃণভাবে এগিয়ে যাচ্ছেন : মার্কিন থিঙ্ক-ট্যাঙ্ক