যে কারণে বিএনপির যুগপৎ আন্দোলনেও নেই জামায়াত

  নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ সন্ধ্যা ০৭:৪৩, সোমবার, ৬ মার্চ, ২০২৩, ২১ ফাল্গুন ১৪২৯
  • নিবন্ধন হারানো জামায়াতকে কিছুটা দূরে রাখতে চান বিএনপি নেতারা।
  • মেসেজে সন্তুষ্ট নন জামায়াত নেতারা।
  • ক্ষমতায় গিয়ে ভিন্ন সুর তুলেছে বিএনপি।
  • এরপর থেকেই যুগপৎ কর্মসূচিতে অংশ নিচ্ছে না দলটি।

অতীতে একসঙ্গে বিভিন্ন আন্দোলন-কর্মসূচি পালন করেছে বিএনপি-জামায়াত। কিন্তু বর্তমান ‘যুগপৎ আন্দোলন’ কর্মসূচি ঘিরে রয়েছে ভিন্নতা। নিবন্ধন হারানো জামায়াতকে কিছুটা দূরে রাখতে চান বিএনপি নেতারা। বাড়াতে চান না ঘনিষ্ঠতাও। এজন্য এখন যেকোনো কর্মসূচি চূড়ান্ত করেই জামায়াতকে মেসেজ বা খুদেবার্তা পাঠায় বিএনপির হাইকমান্ড। তবে মেসেজে সন্তুষ্ট নন জামায়াত নেতারা। ফলে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে জামায়াত।

বিএনপির দায়িত্বশীল নেতারা জানান, রাজনৈতিক নানা হিসাব-নিকাশ বা কৌশল থেকে জামায়াতের সঙ্গে কিছুটা দূরত্ব বজায় রেখে চলার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা। কিন্তু চূড়ান্ত আন্দোলনের আগেই দূরত্ব কমিয়ে আনা হবে। এজন্য কাজও করছেন নীতিনির্ধারকরা।

তবে বিএনপির চলমান আন্দোলন-কর্মসূচি সঠিকভাবে হচ্ছে না বলে দাবি জামায়াত নেতাদের। তারা বলেন, গণতন্ত্র, গণঅধিকার ইস্যুতে সবসময়ই জামায়াতের ভূমিকা রয়েছে। নির্বাচন ইস্যুতে একসময় বিএনপির সঙ্গে জোটবদ্ধ হয়ে আন্দোলন করেছে জামায়াত। পরে ক্ষমতায় গিয়ে ভিন্ন সুর তুলেছে বিএনপি। এবারও তারা একই পথে হাঁটতে পারে।

সূত্রমতে,  যুগপৎ কর্মসূচির প্রথমে গত বছরের ৩০ ডিসেম্বর রাজধানীর মৌচাকে গণমিছিলে পুলিশের ওপর হামলা চালানোয় গ্রেফতার হন জামায়াতের কয়েকজন নেতা-কার্মী। ওই ঘটনা নিয়ে কোনো বিবৃতি দেয়নি বিএনপি। নেয়া হয়নি খোঁজখবরও। ফলে মনক্ষুণ্ন হন জামায়াত নেতারা। এরপর থেকেই যুগপৎ কর্মসূচিতে অংশ নিচ্ছে না দলটি।

এদিকে সম্প্রতি ‘জামায়াতের সঙ্গে ক্ষমতাসীন দলের পরকীয়া’ চলছে বলে মন্তব্য করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির একজন সদস্য। একই মন্তব্য করেন বিএনপির আরেক গুরুত্বপূর্ণ নেতাও।

জামায়াতের এক নেতা বলেন, বিএনপি কোন কৌশলে চলছে সেটা আমরা বুঝতে পারছি না, সামনে বোঝা যাবে। তবে অতীতে কোনো কর্মসূচি চূড়ান্ত করার আগে সব শরিক দলকে নিয়ে গঠিত কমিটির সঙ্গে বৈঠক করতেন বিএনপির শীর্ষ নেতারা। এখন কর্মসূচি চূড়ান্ত করে সব দলকে মোবাইলে মেসেজ বা বার্তা ফরওয়ার্ড করে দেয় বিএনপি। এটি 'ভুল' করছে বিএনপি। এ নিয়ে এরই মধ্যে প্রতিবাদও জানিয়েছে জামায়াত।

‘বিএনপি ভুল করছে’ এমন জবাবে বিএনপির স্থায়ী কমিটির এক নারী সদস্য বলেন, ‘কে ভুল পথে আছে, আর কে সঠিক পথে আছে সেটা আন্দোলনই বলে দেবে। আমরা সঠিক পথে আছি। আন্দোলনও চালিয়ে যাচ্ছি। এখন কেন তাদের মনে হচ্ছে আমরা ভুল পথে আছি সেটা তারা বলতে পারবে, আমরা বলতে পারবো না। তবে আমরা কোনো জোটে নেই, আমরা যুগপৎ আন্দোলনে আছি’।

অন্যদিকে যুগপৎ আন্দোলনে আছেন কিনা এমন প্রশ্নে জামায়াত নেতারা স্পস্ট কোনো উত্তর না দিয়ে এড়িয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। তারা বলছেন, জামায়াত যুগপৎ আন্দোলনে আছে কি নেই সেটি মুখে বলার দরকার নেই, রাজনীতির মাঠই সেটা বলে দেবে।

বিশ্লেষকদের মতে, যুগপৎ আন্দোলন নিয়ে জামায়াত-বিএনপির এমন অস্পষ্ট বক্তব্য হয়তো তাদের মধ্যে টানাপোড়নের আভাস। তবে নির্বাচন ঘনিয়ে এলেই বিষয়টি পরিষ্কার হবে।

Share This Article


ফের বিএনপি জামায়াত সম্পর্ক: উদ্বিগ্ন বিদেশি কূটনীতিকরা

বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি বন্ধ হলে বাড়বে গোপন তৎপরতা, মত শিক্ষাবিদদের

প্রসঙ্গ বুয়েট: ছাত্র রাজনীতি বন্ধের প্রচেষ্টা দেশের জন্য স্থায়ী অকল্যাণ বয়ে আনবে

বেগম জিয়ার ঘনঘন ‘ফিরোজা টু এভার কেয়ার’ রহস্য উন্মোচন!

যে কারণে অপসারণের আগেই গ্রামীণ ব্যাংক ছাড়তে চেয়েছিলেন ড. ইউনূস

মঈনুদ্দিন-ফখরুদ্দিন নয়, 'মাইনাস টু ফর্মুলা’র জনক ছিলেন ইউনূস!

ড. ইউনূসের পক্ষে আইনকানুন ও যুক্তির ব্যবহার নেই, আছে আবেগের বাড়াবাড়ি

আর রাখঢাক নয়: ফের প্ৰকাশ্য হচ্ছে বিএনপি-জামায়াত সম্পর্ক!

ঈদকে সামনে রেখে আগত মৌসুমী ভিক্ষুকদের সাথে রিজভীর সাক্ষাৎ!

শামীম ইস্কান্দারের প্রশ্ন : খালেদা জিয়ার স্বার্থেই কি বিএনপি নির্বাচনে যেতে পারতোনা?

আল্লাহ কার কথা শুনবেন: ইউনুসের নাকি নির্যাতিত ঋণ গ্রহীতাদের?

নোবেল কমিটি জানতো ইউনূসকে, জানতোনা ক্ষুদ্র ঋণের আদ্যোপান্ত !