ফখরুল-রিজভীর দ্বন্দ্বে বিএনপিতে নতুন উত্তাপ

  নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ দুপুর ০২:৫৫, বুধবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, ৯ ফাল্গুন ১৪২৯

সরকারের পদত্যাগ, তত্ত্বাবধায়ক সরকারসহ দশ দফা দাবির বিষয়ে নানামুখী তৎপরতায় মাঠের বিরোধী দল বিএনপি। এরই মধ্যে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এবং সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর দ্বন্দ্ব প্রকাশ্যে এসেছে। আর এই দ্বন্দ্ব শুরু হয়েছে রুহুল কবির রিজভীর জামিন না হওয়াকে কেন্দ্র করে।

জানা যায়, গত ডিসেম্বরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে গ্রেফতার হন রুহুল কবির রিজভী। তিনি কারাগারে আছেন প্রায় আড়াই মাস হতে চলছে। অথচ তার সঙ্গে গত ৭ ডিসেম্বর গ্রেফতার হওয়া দলটির প্রায় সব নেতারা মুক্তি পেলেও জামিন মেলেনি তার। আর এ নিয়ে সন্দেহের ডালপালা মেলতে শুরু করে দলের অভ্যন্তরে। মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের দিকে সন্দেহের আঙ্গুল তুলছেন অনেকেই।

বিএনপির শীর্ষ নেতৃবৃন্দ বিষয়টি নিয়ে কথা বলতে না চাইলেও মধ্যমসারির একাধিক নেতা অকপটে জানান, ফখরুল সাহেব সরকারের সাথে সমঝোতা করে কারাগার থেকে মুক্তি পেয়েছেন, তিনি সমঝোতা করে চলেন এবং রিজভী সাহেবের জামিন না হওয়ার পেছনে তার হাত আছে কিনা তা প্রমানসাপেক্ষ বিষয়, তাই সেটি বোঝা না গেলেও তার স্বার্থ আছে এটি বলা যায়। কারণ রুহুল কবির রিজভীকে নিজের প্রতিদ্বন্দ্বী মনে করেন মির্জা ফখরুল। রিজভীকে আগামীতে দলের মহাসচিব হিসেবে চায় দলের একটি বড় অংশ। তাই নিজের পদ ধরে রাখতে জেল থেকে বের করতে উদ্যোগ নিচ্ছেন না মির্জা ফখরুল।

তবে অনেক নেতার মতে মির্জা ফখরুল সরকারের সাথে আঁতাত করে চলেন এবং তার ঈশারাতেই  রিজভীকে জামিন দেয়া হচ্ছেনা। রিজভীর অনুসারীরা মনে করেন, মির্জা ফখরুল মহাসচিব হিসেবে ব্যর্থ। বিশেষ করে দলের তৃণমূলকে জাগানো, উৎসাহ-উদ্দীপনা তৈরির ক্ষেত্রে তিনি সীমাহীন ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছেন। আর এ বাস্তবতা থেকেই ফখরুলের বিকল্প হিসেবে রুহুল কবির রিজভীকে বিএনপির নেতৃত্বে দেখতে চান তৃণমূলের নেতারা। এটি নিয়ে অনেক আগে থেকেই এই দুই নেতার মধ্যে একটা স্নায়ু যুদ্ধ ছিলো।

তারা আরো বলেন, যেখানে নিপুন রায়, ইশরাকের মতো নেতারা সবাই জামিন পাচ্ছেন সেখানে রিজভীর মতো দলের একজন প্রবীণ ও।গুরুত্বপূর্ণ নেতার জামিন না হওয়া বিস্ময়কর ব্যাপার। আর সে কারণে তার জামিন না হওয়াকে মির্জা ফখরুলকে দুষছেন রিজভী অনুসারীরা।তবে  রিজভীর অনুসারীদের এ ধরনের ধারণাকে অপরিপক্ক বলে মনে করছেন মির্জা ফখরুলের অনুসারীরা। তারা বলছেন, রিজভী আহমেদের জামিন হওয়া না হওয়া আদালতের এখতিয়ার। এর পেছনে মির্জা ফখরুলের সংশ্লিষ্টতার কোনো প্রশ্নই আসে না।

বিষয়ঃ বিএনপি

Share This Article


ব্যাংক খাত নিয়ে পরিকল্পিত অপপ্রচার!

বিএনপির মহাসচিব নিয়োগে তারেকের সাথে তৃণমূলের মতবিরোধ!

যত মার্কিন কর্মকর্তাই আসুন বিএনপির আশাবাদী হওয়ার ন্যূনতম কারণ নেই!

দল পুনর্গঠনে সরকার বিরোধিতার নতুন কৌশলে জাতীয় পার্টি!

উপজেলা নির্বাচন : বিএনপির ৭ জনের জয়ে বেকায়দায় স্থানীয় দায়িত্বশীলরা!

বিএনপির আন্দোলন: ভারত বিরোধিতাই মুখ্য হয়ে উঠছে!

বিএনপি নেতারা ক্লান্ত: জানালেন গয়েশ্বর

বিবিসি প্রতিবেদন: তৃণমূলের উপর বিএনপির শীর্ষ নেতৃত্বের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে প্রশ্ন উঠছে!

কেন গরমে নয় আন্দোলন: জানালেন মান্না

উপজেলা নির্বাচন: 'জয়ী-বহিষ্কৃতদের' গোপনে সমর্থন জানাচ্ছেন বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা!

সাত জানুয়ারির নির্বাচনে যেতে মোটা অংকের টাকা দাবি করেছিলেন মান্না!

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বে বড় পরিবর্তন আসছে: বিবিসির প্রতিবেদন