প্রীতিকে কুরুচিকর মন্তব্য! ক্ষমা চাইতে হয় বলিউড তারকাকে

ফাইল ফটো
ফাইল ফটো

কর্ণ জোহরের অনুষ্ঠান ‘কফি উইথ কর্ণ’। বি-টাউনের বহু তারকাকে আমন্ত্রণ জানিয়ে তাঁদের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে প্রশ্ন করেন পরিচালক ও প্রযোজক কর্ণ। কখনও কখনও মজার ছলে এমন প্রশ্ন করা হয়, যা নিয়ে তারকাদের মধ্যে ঠান্ডা লড়াই চলতে থাকে। বলিউডের বহু বিতর্কের সৃষ্টি এই অনুষ্ঠান থেকেই।

সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর পর এই অনুষ্ঠানে আসা বহু তারকার মন্তব্য নিয়ে জলঘোলা হয়। সুশান্তের মানসিক অবসাদের পিছনে ইন্ডাস্ট্রিকে দায়ী করেন দর্শকরা।

 

স্বজনপোষণ নিয়েও প্রশ্ন ওঠে অনেকের মনে। তবে এ ধরনের বিতর্কের শুরু এখন নয়। ২০০৪ সাল থেকে কর্ণ এই অনুষ্ঠান করছেন। তখন থেকেই অধিকাংশ ‘বলিউড গসিপ’-এর অন্যতম কেন্দ্র ‘কফি উইথ কর্ণ’।


২০১১ সালেও এই অনুষ্ঠানের কারণেই দুই বলি তারকার মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি হয়। পরে তা এমন বাড়াবাড়ির জায়গায় পৌঁছয় যে, কর্ণকে অনুষ্ঠানের একটি পর্ব থেকে কিছু অংশ বাদও দিতে হয়েছিল।

‘গোলমাল’ ছবিতে লাকির চরিত্রে অভিনয় করে সেই সময় দর্শকদের মন কেড়েছিলেন তুষার কাপূর। কর্ণের এই অনুষ্ঠানে অতিথি হয়ে এসেছিলেন তুষার।

প্রশ্নোত্তর পর্ব চলাকালীন তিনি অভিনেতাকে কয়েকটি শব্দ বলতে শুরু করেন, যে শব্দগুলি শোনার পর বলিউডের যে তারকার কথা তুষারের মনে আসবে, তার নামই বলতে হবে। অনেকটা ‘র‌্যাপিড ফায়ার’ খেলার মতো।

কর্ণ বলতে শুরু করেন, ‘বোটক্স’, ‘সার্জারি’, ‘ফিলার্স’ প্রভৃতি শব্দ। তুষার মুহূর্তের মধ্যেই অভিনেত্রী প্রীতি জিন্টার নাম করেন। প্রীতি তখন সিনেমার কাজ নিয়ে ব্যস্ত। কিন্তু তুষারের মুখে অভিনেত্রীর নাম আসায় তার পিআর টিমের সদস্যরা প্রীতিকে পুরো বিষয়টি জানান।

প্রীতিও এই মন্তব্যে প্রচণ্ড ক্ষুব্ধ হন। কর্ণ তার কাছের বন্ধু হওয়ায় তাকে পর্বটি থেকে নির্দিষ্ট অংশটুকু বাদ দিতে অনুরোধ করেন। এমনকি তুষারের সঙ্গে যোগাযোগ করে প্রীতি জানতে চান, এমন মন্তব্য করার পিছনে কারণ কী?

তুষার জানান, তার প্রিয় অভিনেত্রীদের মধ্যে প্রীতি অন্যতম। তাকে নিয়ে কোনও কুমন্তব্য তিনি করতেই পারেন না। সেই সময় একটি পত্রিকার কভারে প্রীতির ছবি ছিল এবং তুষার এই অনুষ্ঠানে যাওয়ার আগে পত্রিকাটি দেখেছিলেন।

কর্ণ হঠাৎ এই প্রশ্ন করায় তুষারের মনে সবার প্রথমে প্রীতির মুখ ভেসে ওঠে। তাই তিনিও মুখ ফসকে বলে ফেলেন। তুষার এমনও বলেন যে, ‘বোটক্স’ শব্দের অর্থও তিনি জানেন না। প্রীতিকে আঘাত করার কোনও উদ্দেশ্য তার ছিল না। তুষার এই ঘটনায় খুবই দুঃখিত। অভিনেত্রীর কাছে বার বার ক্ষমা চান তিনি।

তুষারের মতে, কর্ণের এই অনুষ্ঠানটি দর্শকদের বিনোদনের জন্য। অতিথি হিসাবে তিনিও মজা করেই উত্তর দিয়েছেন। তিনি ব্যক্তিগত ভাবে কাউকে আঘাত করতে চাননি।

শেষ পর্যন্ত কর্ণ তুষারের মন্তব্যটি অনুষ্ঠান থেকে বাদ দেন। প্রীতি জিন্টার মতে, তুষার কখনও তার সঙ্গে কাজ করেননি। তাই কিছু না জেনে এত জনপ্রিয় একটি অনুষ্ঠানে এ রকম মন্তব্য করা উচিত হয়নি তুষারের।

Share This Article


৩ দিনের ব্যবধানে আবার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ল উত্তর কোরিয়া

তালেবানকে একঘরে করে রাখলে পরিণতি হবে ভয়াবহ: বিলাওয়াল ভুট্টো

থাইল্যান্ড থেকে কানাডা গেলেন মিয়ানমারের সেই বিউটি কুইন

ট্রেন আসতেই রেললাইনে শুয়ে পড়েন আলী হোসেন!

ইরাকের কুর্দিস্তানে ইরানি হামলায় নিহত ১৩

সহপাঠীকে বিয়ে করলেন ক্রিকেটার শামিম পাটোয়ারী

মিয়ানমারে আপত্তিকর ছবি প্রকাশ, মডেলের ছয় বছরের জেল

অং সান সুচির আরও ৩ বছরের কারাদণ্ড

মানবতার ছদ্মবেশে ভোটের রাজনীতিতে জামায়াত!

অপরিবর্তিত থাকতে পারে দিন ও রাতের তাপমাত্রা

বুবলীর বেবি বাম্প প্রকাশের পরই শাকিব খান অসুস্থ

ভারতের শক্তিশালী গ্রামে স্বাগত

ইতিহাসে সবচেয়ে বড় ‘সাইবার হামলায়’ কোটি মানুষের তথ্য চুরি

বিয়ে করলেন তরুণ অলরাউন্ডার শামীম পাটোয়ারী

বিশ্বের জন্য অস্ত্র উৎপাদনের ঘোষণা ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর