পিনাকী ভট্টাচার্য: নীতিকথা আওড়ানো এক অসাধু-দুর্নীতিগ্রস্ত ব্যক্তি

  নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ বিকাল ০৩:৩৪, সোমবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২২, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

পিনাকী ভট্টাচার্য।অসৎ, অসাধু এবং দুর্নীতিগ্রস্ত একজন চিকিৎসক। ২০০৮ সালে দেশীয় একটি ফার্মাসিউটিক্যাল কোম্পানীতে কর্মরত অবস্থায় জালিয়াতির মাধ্যমে ভুয়া ঔষধ সরবরাহে  নাম জড়িয়েছিলো তার । সেসময় স্বাস্থ্য ও ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের কিছু দূর্নীতিবাজ কর্মকর্তাদের সাথে যোগসাজশে কয়েক কোটি টাকা লুটপাট করেন তিনি। ১/১১ এর রাজনৈতিক অস্থিরতার কারনে বিষয়টি নিয়ে তখন তেমন কোনও আলোচনা হয়নি।

জানা গেছে, ২০০৮ সালে দেশে কালাজ্বরের প্রাদুভাব বেড়ে যায়। তখন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা-ডব্লিউএইচও'র অর্থায়নে কালাজ্বরের ঔষধ সারাদেশে আক্রান্তদের বিনামূল্যে সরবরাহ করেছিল সরকার। সুকৌশলে সে সময়  ঔষধ সরবারহের কাজ বাগিয়ে নিয়েছিল পিনাকী। নকল মিল্টেফসিন ঔষধ সরবারহ করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নেন তিনি। পরে বিষয়টি ধরা পড়লে কোম্পানি থেকে বরখাস্ত করা হয় তাকে।

তারপরই পিনাকী সরব হন অনলাইনের বিভিন্ন প্লাটফর্মে লেখালেখিতে। নিজে একজন সনাতন ধর্মাবলম্বী হয়েও সনাতন ধর্ম নিয়ে বিভিন্ন বির্তকিত লেখা শুরু করেন আলোচনায় আসতে।  সেখানে তিনি গো-হত্যার পক্ষে অবস্থান নিয়ে সনাতন ধর্মের অনুসারীদের মধ্যে বিদ্বেষ ছড়িয়েছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। 

২০১৩ সালের ফেব্রুয়ারিতে নিজের লেখা ‘ভগবানের সহিত কথোপকথন’ সিরিজে সৃষ্টিকর্তাকে নিয়েও রসিকতা করেন পিনাকী।              

এছাড়া ফেসবুকে, বিশেষ করে আওয়ামী লীগ এবং বামপন্থীদের বিরুদ্ধে অনবরত বিতর্কিত  স্ট্যাটাস দিয়ে এবং ইসলাম ধর্মের সেবক সেজে সস্তা জনপ্রিয়তা পাওয়ার চেষ্টা করেন।

পিনাকীকে নিয়ে উইমেন চ্যাপ্টার নামে একটি ওয়েবসাইটে লেখক শেখ তাসলিমা মুন লিখেছেন, ‘পিনাকী বুঝতে পেরেছেন এ অঞ্চলে মৌলবাদই একটি উদীয়মান শক্তি। যে সরকারই আসুক এদের পায়ে তেল মর্দন ছাড়া কারও পক্ষে ক্ষমতা পোক্ত করা সম্ভব নয়। তারাই মূল শক্তি। তাই পিনাকী অ্যানালাইসিস করে দেখেছেন, তার ক্ষমতা ও শক্তি বাংলাদেশের যে কোনও সরকারের চেয়ে শক্তিশালী। সরকার যাবে, সরকার বদলাবে, কিন্তু এদের ক্ষমতা কেবল বাড়তেই থাকবে এবং এটাই তার সব সাহসের মূল উৎস। পিনাকী আমাদের কাছে অসৎ, অসাধু এবং একটি ভয়ংকর সন্ত্রাসের নাম। তিনি এমন একটি গ্রুপকে উপজীব্য করে বলয় গড়ে তুলেছেন, যা দেশের মুক্তবুদ্ধির চর্চা ও গণতন্ত্রের জন্য হুমকি হয়ে উঠেছে। তিনি একটি বিশাল নেতিবাচক শক্তি গড়ে তুলেছে। ইতিবাচক শক্তির বিরুদ্ধেই।

অন্যদিকে কোটা সংস্কার আন্দোলনকে সমর্থন ও তাকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা এবং  নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের নামে গুজব ছড়িয়ে স্কুল-কলেজের কোমলমতি শিশু-কিশোরদের উসকানি দিয়ে তাদের জীবন হুমকির মুখে ফেলে দিয়ে দেশে একটা অরাজক পরিস্থিতি সৃষ্টির অপচেষ্টার অভিযোগও রয়েছে তার বিরুদ্ধে।

এমন নানান বিতর্কিত কর্মকান্ডের কারণে ২০১৮ সালের ৫ আগস্ট আইন প্রয়োগকারী সংস্থা তাকে তলব করে। এর পরই তিনি স্বেচ্ছায় আত্মগোপনে চলে যান। দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা জারি হলে গোপনে সীমান্ত পার হয়ে ২০১৯ সালের জানুয়ারিতে ব্যাংকক যান। সেখানে কিছুদিন অবস্থান করে ফ্রান্সে পালিয়ে গিয়ে রাজনৈতিক আশ্রয় নেন তিনি।

বর্তমানে ফ্রান্সে বসেও  ধর্ম, দেশের কৃষ্টি-কালচার, সরকার, সেনাবাহিনী, বঙ্গবন্ধু পরিবারের বিরুদ্ধে ক্রমাগত বিদ্বেষ ছড়িয়ে যাচ্ছেন পিনাকী। তিনি দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব, জাতীয় পতাকা, জাতীয় সংগীতের মতো বিষয়গুলোকেও প্রশ্নবিদ্ধ করার অপচেষ্টা করছেন।

কথিত আছে পিনাকী অসৎ উদ্দেশ্যে হিন্দু ধর্ম ত্যাগ করেও হিন্দু নামটি ব্যবহার করে হিযবুত তাহরীর, আল-কায়েদা ও আইএসআইআই এর মতো উগ্রবাদের পক্ষে সমর্থন আদায়ের অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন, যাতে তার  অপপ্রচার মানুষ বিশ্বাস করে।

বিষয়ঃ বাংলাদেশ

Share This Article

মুজিব কর্নার থেকে বঙ্গবন্ধুকে জানবে নতুন প্রজন্ম

‘গণতন্ত্র হত্যা করে বিএনপি আবার গণতন্ত্রের গল্প শোনায়’

ডিজিটাল বাংলাদেশের স্বপ্নদ্রষ্টা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে স্মার্ট হবে স্বাস্থ্যসেবা

কিছু না পেয়ে এখন পাঠ্যপুস্তকের ভুলকে ইস্যু বানাচ্ছে বিএনপি

শিগগিরই বাংলাদেশে ক্যাম্পাস খুলছে মালয়েশিয়ার ইউসিএসআই

বিএনপির যুগপৎ আন্দোলন:সময় না পেরুতেই বেকায়দায় আন্দোলনের সঙ্গীরা!

গণতন্ত্রের প্রতীক আফগান নারী কৌঁসুলিরা এখন স্পেনের শরণার্থী

নির্বাচন কমিশনে চিরুনি অভিযান:সর্ষেই ভুত!

পাঠ্যবই পৌঁছাতে দেরি হলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা: শিক্ষামন্ত্রী

যুক্তরাষ্ট্রে নারী কাউন্সিলরকে গুলি করে হত্যা


আওয়ামী লীগের ত্যাগী নেতাদের মনোনয়নের ব্যাপারে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়

‘পাঠ্যবইয়ে যে তথ্য নেই, সেটা বলে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে’

টুইটারে ঝগড়ায় জড়ালেন কঙ্গনা-উরফি

ইউক্রেনকে মাত্র ৫০ টাকায় ড্রোন দিতে চায় মার্কিন কোম্পানি

পাতাল রেলের ব্যয় ৫২ হাজার কোটি টাকা: ওবায়দুল কাদের

এ দেশের কোনো মানুষ গৃহহীন থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী

জাপানি দুই শিশু নিয়ে বাবার আপিল, শুনানি ১৬ ফেব্রুয়ারি

কক্সবাজারে বিএনপি নেতার বিরুদ্ধে কবরস্থান দখলচেষ্টার অভিযোগ

বায়ুদূষণ রোধে সম্ভাব্য সবকিছু করা হবে: পরিবেশমন্ত্রী

জনগণের মন বোঝে না বিএনপি, উন্নয়নের পরিবর্তে দুর্নীতিতে চ্যাম্পিয়ন

বিএনপির রাজনীতি ভুলের চোরাগলিতে আটকে গেছে: ওবায়দুল কাদের

বিএনপি নেতা মোসাদ্দেক আলীর বিরুদ্ধে মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু