যুক্তরাষ্ট্রে বিএনপির লবিস্ট নিয়োগ, অর্থায়নে জামায়াত !

  নিউজ ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ রাত ০৮:১২, সোমবার, ১০ এপ্রিল, ২০২৩, ২৭ চৈত্র ১৪৩০

রাজনীতির মাঠে বিএনপি জামায়াতের সম্পর্ক বিচ্ছেদের ঘটনা নতুন কোনো বিষয় নয়। এই দূরত্ব যে কৌশলগত, কোনোভাবেই আদর্শিক নয়- সেটা কম বেশি সবারই জানা। এরই মধ্যে খবর এসেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বিএনপির তরফে যে ৮টি লবিস্ট ফার্ম নিয়োগ দিয়েছিলো তার বেশির ভাগ অর্থ সহায়তাকারী ছিল জামায়াত ইসলামী।

 

সূত্রমতে, যুদ্ধাপরাধীর দণ্ড থেকে বাঁচতে যে লবিস্ট ফার্মগুলোকে নিয়োগ দিয়েছিল জামায়াত তার মধ্যে অন্তত তিনটি ফার্ম বর্তমানে  বিএনপির পক্ষেও কাজ করছে সরকার পতনের লক্ষ্যে যুক্তরাষ্ট্র সরকারের হস্তক্ষেপ কামনায়।আর এর সমুদয় অর্থ ব্যয় করছে জামায়াত। সম্প্রতি একটি তদন্তে উঠে এসেছে এমনই চাঞ্চল্যকর তথ্য।

২০২২ সালের জানুয়ারিতে যুক্তরাষ্ট্রে বিএনপি-জামায়াতের লবিস্ট ফার্ম নিয়োগের বিষয়টি প্রথম সামনে আনেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন। সেসময় সংসদে তিনি দাবি করেন, বিএনপি-জামায়াত ২০১৭ সাল পর্যন্ত ৪টি এবং ২০১৯ সালে ১টি লবিস্ট ফার্ম নিয়োগ করে। আর যুদ্ধাপরাধীদের বিচার ঠেকাতে তারা আরও ৩টি লবিস্ট ফার্ম নিয়োগ করে। এসব চুক্তিতে ব্যয় করা হয়েছে অন্তত ৩৭ লাখ ডলার। লবিস্ট নিয়োগে অর্থের উৎস খুঁজে বের করার পাশাপাশি বিদেশে ওই অর্থ পাঠানোর প্রক্রিয়া নিয়েও তদন্তের দাবি জানিয়েছিলেন তিনি। এরপরই তদন্তের জন্য মাঠে নামে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিভিন্ন সংস্থা, যেখানে যুক্ত ছিল দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক), জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) সেন্ট্রাল ইন্টেলিজেন্স সেল (সিআইসি) ও একাধিক গোয়েন্দা সংস্থা।

তদন্ত সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ব্লু স্টার স্ট্র্যাটেজির সঙ্গে সেপ্টেম্বর ২০১৮ থেকে মে ২০২০ পর্যন্ত চুক্তি করেছে বিএনপি। প্রাথমিক হিসাবে এখানে খরচ হয়েছে অনুমানিক ১০ লাখ ডলার। অপর লবিস্ট কোম্পানি একিন গ্যাম্প এবং টনি ক্যাডম্যানের সঙ্গে ২০১৫ থেকে ২০১৭ পর্যন্ত চুক্তিতে ব্যয় করা হয়েছে অন্তত ২৭ লাখ ডলার, যেখানে সিংহভাগ অর্থের যোগান দেয় জামায়াত। একই সাথে জামায়াতের পক্ষে পিস এ্যান্ড জাস্টিস চুক্তি করে অন্তত চারটি। কিন্তু এখানে কত টাকা ব্যয় হয়েছে সেটি পরিষ্কার নয়। চুক্তির মেয়াদ শেষ হলে পুনরায় ২০২৪ সালের জুন পর্যন্ত তা বর্ধিত করা হয় এবং এর সমুদয় অর্থও পরিশোধ করে জামায়াত।

উল্লেখ্য, মার্কিন আইনে লবিস্ট নিয়োগ গ্রহণযোগ্য। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের লবিস্ট নিয়োগ করে তাদের কাছে যে ডলার পাঠানো হয়েছে তার গ্রহণযোগ্য হিসাব নিকাশ থাকতে হবে। বিদেশে ডলার পাঠানোর ঘটনাটি যদি হুন্ডি বা মানি লন্ডারিং এর মাধ্যম করা হয় তা বাংলাদেশের আইনে শাস্তিযোগ্য অপরাধ। বিএনপি-জামায়াতের হয়ে কিভাবে কারা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের লবিস্ট নিয়োগ করে টাকা পাঠিয়েছে তার আইনানুগ বিষয়ে তদন্ত এখনো চলমান।  এসব চুক্তির দালিলিক প্রমাণাদি পাঠানো হচ্ছে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের কাছে। জাতীয়তাবাদী দলের (বিএনপি) ঠিকানা ব্যবহার করে এই চুক্তিগুলো করা হয়েছে বলেও জানা গেছে।

অন্যদিকে, রাজনৈতিক দল নিবন্ধন আইন অনুযায়ী প্রতিবছর শেষে আয়-ব্যয় হিসাব প্রকাশ করার বিধান থাকলেও জামায়াতের নিবন্ধন বাতিল হয়ে যাওয়ায় তাদের সেই বাধ্যবাধকতা নেই। ফলে বিএনপির জামায়াতকে দিয়ে সহজেই সেই কাজটি করিয়ে নিতে পারে।

বিশ্লেষকরা বলছেন, জামায়াতের সঙ্গে বিএনপির রাজনৈতিক সম্পর্ক ও বোঝাপড়া দীর্ঘদিনের। বলা যায়, পঁচাত্তর-পরবর্তী বাংলাদেশের রাজনীতিতে জামায়াতে ইসলামীর পুনরুজ্জীবন ও উত্থান হয়েছে জিয়াউর রহমানের সহায়তায়। বিএনপির পৃষ্ঠপোষকতা না পেলে জামায়াত মুক্তিযুদ্ধে বিরোধিতা করার পরও স্বাধীন বাংলাদেশে রাজনীতি করতে পারতো না। জিয়াউর রহমানের মৃত্যুর পরও জামায়াত কখনো বিএনপিকে ছাড়েনি। বরং খালেদা জিয়া জামায়াত নেতাদের মন্ত্রী বানিয়েছেন।

বিশ্লেষকরা বলেন, অর্থনৈতিক ও সাংগঠনিক ক্ষেত্রে বিএনপির থেকে বেশ শক্তিশালী জামায়াত। তবে যুদ্ধপরাধীর দণ্ড থাকায় মানুষের কাছে গ্রহণযোগ্যতা নেই তাদের। আর এ সুযোগটিই কাজে লাগাচ্ছে বিএনপি। এখন তাদের অর্থেই বিদেশে লবিস্ট নিয়োগ করছে বিএনপি। সাম্প্রতিক সময়ে র‌্যাবের উপর যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞা এই লবিস্ট এর  ফল বলেই মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

Share This Article

আন্দোলনকারীদের মারধরে র‍্যাব সদস্যের অবস্থা সংকটাপন্ন

৪ ঘণ্টায়ও নেভেনি বিটিভির আগুন

ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে প্রস্তুত হয়ে যান : ওবায়দুল কাদের

শিবির-ছাত্রদলের নির্মমতা: চট্টগ্রামে ছাদ থেকে ফেলে দেয়া হয় ১৫ ছাত্রলীগ কর্মীকে

ধৈর্যের পরীক্ষা দিচ্ছি, এটা দুর্বলতা নয়: ডিবিপ্রধান হারুন

অহেতুক কিছু কথায় মূল্যবান জীবন ঝরে গেল : প্রধানমন্ত্রী

সর্বোচ্চ আদালতের রায়ই আইন হিসেবে গণ্য হবে: জনপ্রশাসনমন্ত্রী

আইনি প্রক্রিয়ায় সমস্যা সমাধানের সুযোগ রয়েছে: প্রধানমন্ত্রী

কোটার আড়ালে চট্টগ্রামে শিবির নেতার নির্দেশেই হত্যাকাণ্ড?

আন্দোলন ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে ষড়যন্ত্র করছে: ডিবিপ্রধান


ঢাকা কলেজের ছাত্রের প্রাণহানি, সারা দেশে নিন্দার ঝড়

শিবির-ছাত্রদলের নির্মমতা: চট্টগ্রামে ছাদ থেকে ফেলে দেয়া হয় ১৫ ছাত্রলীগ কর্মীকে

আমরা সরকার পতন করেই ঘরে ফিরবো: গাজীপুর থেকে আগত শিবির কর্মী

কোটা আন্দোলনে জামায়াত-শিবির অনুপ্রবেশ, শিক্ষকদের মারধর

প্রধানমন্ত্রী'র বক্তব্যের মর্মার্থ বিকৃত করলো কারা

দুইজন নিহতের অসত্য দাবি যুক্তরাষ্ট্রের, কড়া প্রতিবাদ বাংলাদেশের

সর্বোচ্চ বিদ্যাপীঠে স্বঘোষিত ‘রাজাকার,’ কেমন মেধাবী তারা?

কোটা আন্দোলনে বিএনপির অর্থায়ন, সারা দেশে শিবিরের শক্ত নেটওয়ার্ক

ঢাবি ক্যাম্পাসে যেভাবে জড়ায় ছাত্রলীগ

'রাজাকার' পরিচয় দিতে একবারও লজ্জা হলো না তাদের

বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার সাথে 'ওয়ান ইলেভেন' সরকারের আচরণ যেমন ছিল

কোটা সংস্কার আন্দোলন: সর্বোচ্চ বিদ্যাপিঠে দাঁড়িয়ে কলঙ্কের পদচিহ্ন এঁকে দিলো যারা!